আজ ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সময় : সন্ধ্যা ৭:২০

বার : বৃহস্পতিবার

ঋতু : হেমন্তকাল

হবিগঞ্জের বানিয়াচঙ্গে সেচ প্রকল্প নিয়ে দীর্ঘদিনের বিরোধ সালিশে নিষ্পত্তি করলেন এম.পি আব্দুল মজিদ খান

 হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:

হবিগঞ্জ জেলার বানিয়াচং উপজেলার ১৪ নং মুরাদপুর ও ১৫ নং পৈলার কান্দি দুই ইউনিয়নের লোকজনের মাঝে সেচ প্রকল্প নিয়ে দীর্ঘদিনের বিরোধ আজ ২০ নভেম্বর ২০২০ ইংরেজী তারিখে নিষ্পত্তি করা হয়েছে।

জানা যায় – সোনাকান্দি সেচ প্রকল্পের অধীনে ১৩০০ কের বোরো জমি রয়েছে, এই সেচ প্রকল্প নিয়ে এলাকার দুই পক্ষের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত বিরোধ চলছিল আস্তে আস্তে তাদের বিরোধ মারাত্মক আকার ধারণ করে দাঙ্গা হাঙ্গামা সংগঠিত হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দেয়,

এই পরিস্থিতি দমন করে, তাদের বিরোধ নিষ্পত্তির জন্য আজ এমপি মহোদয়ের নিজ চেম্বারে দুই পক্ষের উপস্থিতিতে
প্রায় তিন ঘন্টা ব্যাপী আলোচনা করে উভয় পক্ষের যাবতীয় বিরোধ নিষ্পত্তি করে দিয়েছেন এডভোকেট আব্দুল মজিদ খান মহোদয়। উক্ত সালিশ বিচারে উভয় পক্ষ সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন এবং এলাকা জুড়ে শান্তির সুবাতাস বইছে ।

উক্ত সালিশ বিচারে আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ফারুক আমীন, ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ফজলুর রহমান খান, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তজমূল হক চৌধুরী সহ এলাকার গণ্যমান্য মুরুব্বিয়ান।

যুগে যুগে সামাজিক ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠায় সালিশ পদ্ধতি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছে। সমাজের নানা অসঙ্গতি অন্যায় -অবিচার দূর করতে রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থার পাশাপাশি সামাজিক বিচার ব্যবস্থা মানুষকে অনেক শান্তি স্বস্থি ও নিরাপদে রাখছে আর এসব কার্যক্রম বাস্তবায়ন সম্ভব হয়েছে সমাজহিতৈষী কিছু সালিশ ব্যক্তিদের জন্য।

স্বেচ্ছাসেবামূলক এসব কাজে নিজের দায়িত্ববোধ ও নৈতিকতার প্রকাশ ঘটিয়ে সালিশিরা নিজেদের গৌরবান্বিত মনে করতেন।

ঐতিহ্যবাহী সালিশ বিচারকে প্রাধান্য দিয়ে এলাকার শত শত বিরোধ সালিশ বিচারের মাধ্যমে নিষ্পত্তি করে এলাকায় শান্তি প্রতিষ্ঠা করে যাচ্ছেন এম.পি আব্দুল মজিদ খান ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category