শিরোনাম
একাই করেন তিনটি সরকারি চাকুরী দ্রব্যমূল্য উর্ধ্বগতির প্রতিবাদে জগন্নাথপুরে জাতীয় পার্টির প্রতিবাদসভা বড়লেখার হাকালুকি হাওর পারে গৃহনির্মাণ সামগ্রী বিতরণ জামিনে বের হয়ে ফের দুই প্রতারক সহ গ্রেফতার মজিবুর রহমান। গুমান মর্দন প্রবাসী পরিষদ সংযুক্ত আরব আমিরাত গভীরভাবে শোকাহত বৃহত্তর গোলাপগঞ্জ উপজেলার মানব সেবায় নিয়োজিত হবিগঞ্জের মাধবপুরে ১০ কেজি গাজাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার বানিয়াচংয়ে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯২তম জন্মবার্ষিকী পালিত বিশ্বনাথে নাগরিক অধিকার বাস্তবায়ন কমিটি মতবিনিময় সভা আহবায়ক কমিটি গঠন দয়ামীর ইউনিয়ন এডুকেশন ফোরাম ইউ.কে এর উদ্দ্যোগে ফ্রি ব্লাড ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত
বৃহস্পতিবার, ১১ অগাস্ট ২০২২, ০৭:৫৮ অপরাহ্ন
Notice :
Wellcome to our website...

সাতক্ষীরায় স্বল্প আয়ের মানুষেরা মাঝে টিসিবি’র পণ্য বিক্রয় শুরু

Coder Boss / ৩৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : রবিবার, ২০ মার্চ, ২০২২

শেখ অাবমুছা সাতক্ষীরাঃ

সাতক্ষীরা জেলাব্যাপী স্বল্প আয়ের কার্ডধারি মানুষেরা মাঝে আনুষ্ঠানিকভাবে টিসিবি পন্য বিক্রয় শুরু হয়েছে। আজ রোববার সকালে সাতক্ষীরা সরকারি স্কুল মাঠে এ পণ্য বিক্রি কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন, সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি।

এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসক মোহাম্মাদ হুমায়ূন কবির, পৌর মেয়র তাজকিন আহমেদ চিশতি, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাতেমা-তুজ-জোহরাসহ জেলা প্রশাসানের কর্মকর্তাগন উপস্থিত ছিলেন।

সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির জানান, বানিজ্য মন্ত্রনালয়ের নিদের্শে ও জেলা প্রশাসনের তত্বাবধানে সাতক্ষীরা জেলার ৭৮টি ইউনিয়ন ও দুটি পৌর সভায় ৪৬ জন ডিলার মাধ্যমে ৭৩ হাজার ৭৯৭ জন স্বল্প আয়ের কার্ডধারি মানুষের মাঝে প্রথম দফায় টিসিবি পন্য দেয়া শুরু হয়েছে। দু’বার হৃাসকৃত মুল্যে কার্ডধারিদের মাঝে এই টিসিবি’র পণ্য বিক্রি করা হবে। প্রতিটি মানুষকে ২ কেজি মসুরের ডাল, ২ কেজি চিনি ও ২লিটার সয়াবিন তেল দেয়া হবে। যার প্রতি কেজি চিনি ৫৫ টাকা, ডাল ৬৫ টাকা এবং প্রতি লিটার সয়াবিন ১১০ টাকা।

টিসিবি পন্য ক্রয় করতে আসা কয়েকজন জানান, সরকারের এই উদ্যোগ খুবই প্রশংসনীয়। তাদের দাবী প্রতি মাসে একবার যদি তারা টিসিবির পন্য ক্রয় করতে পারেন তাহলে তাদের মত নিন্ম আয়ের মানুষ গুলোর খুবই উপকার হবে। তবে, টিসিবি পন্য ন্যায্য মূল্যে বিক্রয়ের পাশাপাশি সরকারকে বাজার মনিটরিং এর মাধ্যমে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের মূল্য স্থতিশীল রাখার দাবী জানান তারা।

সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি জানান, প্রতিটি রোজার মাসে এক শ্রেনীর অসাধূ ব্যবসায়ী যারা মুনাফাখোর তারা খাদ্যদ্রব্য পর্যাপ্ত মজুত থাকার পরও অহেতুক নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম বাড়িয়ে দেয়। এজন্য সরকার এক কোটি স্বল্প আয়ের জনগনের মাঝে নিত্যপয়োজনীয় দ্রব্য পৌছে দিচ্ছে। যা তারা তাদের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে ক্রয় করতে পারেন তার ব্যবস্থা করেছেন সরকার। এরপরও কিছু লোক সরকারের বিরুদ্ধে কথা বলেন। তাদের কাজই সরকারের বিরুদ্ধে কথা বলা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Registration Form

[user_registration_form id=”154″]

পুরাতন সংবাদ দেখুন

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০৩১  

বিভাগের খবর দেখুন