শিরোনাম
মানুষ মানুষের জন্য, সকলে বন্যার্ত অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়ানো উচিত…এটিএম হামিদ প্রাকৃতিক দূর্যোগে দিশেহারা সিলেট, থৈথৈ করে বাড়ছে পানি কানাইঘাটে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলের দ্বায়িত্বশীলরা পানি বিশুদ্ধ করন ট্যাবলেট নিয়ে উপজেলার বন্যাগ্রস্ত মানুষের পাশে বানিয়াচংয়ে বাংলা টিভি’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন সরকার বন্যার্তদের পাশে আছে ত্রাণের অভাব হবেনা— এমপি মানিক সিলেটে বন্যা দুর্গত এলাকা পরিদর্শন ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরন করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল মোমেন ঘাটাইল উপজেলায় আশ্রয়ন প্রকল্পের অধীনে বরাদ্দকৃত ঘরে ফাটল ছাতকে বন্যার অবনতি,নদ-নদীতে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত উপজেলা সদরের সাথে সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন গোবিন্দগঞ্জে বঙ্গবন্ধু-বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুর্ধ১৭ এর সেমিফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত পলাশবাড়ী‌তে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা জাতীয় গােল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের শুভ উ‌দ্বোধন
সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ১০:৪৪ অপরাহ্ন
Notice :
Wellcome to our website...

বানারীপাড়ায় মানবিক পুলিশ কর্মকর্তা জাফর আহম্মেদ ওসি (তদন্ত) মুমূর্ষু রোগীকে পৌঁছে দিলেন হাসপাতালে।

Coder Boss / ১২৮ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ৩০ জুলাই, ২০২১

জাকির হোসেন, বরিশাল-
বানারীপাড়ায় এক মানবিক পুলিশ কর্মকর্তার নাম ওসি (তদন্ত)মোঃ জাফর আহমেদ। অসহায় ও মুমূর্ষু রোগীকে নিজ উদ্যোগে ও থানার গাড়িতে পৌঁছে দিলেন হাসপাতালে ২৯ জুলাই রাত ১১ টা ৪৫ মিনিট। নীরব ও নিস্তব্ধ চারিদিক । মেঘলা আকাশ পড়ছে গুড়িগুড়ি বৃষ্টি তার সাথে রয়েছে হালকা বাতাস। বৈরী আবহাওয়ায় মধ্যেই বানারীপাড়ার সন্ধ্যা নদীর পশ্চিম পাড়ের বাইশারী ইউনিয়ন থেকে একজন মুমূর্ষ রোগী ফজিলাতুন্নেছা (৭০) তাকে নিয়ে পশ্চিম পাড় (ফেরীঘাটে) হাজির হন স্বজনরা। হাসপাতালে নেয়ার মত কোন যানবাহন খুজে পাচ্ছিলেন না ।
লকডাউন তার সাথে গভীর রাত হাসপাতালে নেয়ার মত কোন উপায় খুঁজে পাচ্ছিলেন না তারা। হতাশ হয়ে ফেরিঘাটে বসে রইলেন। ।
এমন সময় খবর পান বানারীপাড়া থানার পুলিশ ইন্সপেক্টর (তদন্ত) মো. জাফর আহমেদ। দ্রুত থানার পিকআপ নিয়ে হাজির হন ফেরীঘাটে থাকা রোগীর কাছে। রোগীর সাথে থাকা স্বজনরা ঘোর অমানিশার অন্ধকার থেকে আশার আলো দেখতে পান। আনন্দ অশ্রুতে ভরে ওঠে স্বজনদের চোখ গাড়িতে নিজেদের সিটে বসালেন রোগীকে। পৌছে দিলেন হাসপাতালে। এ যেন মানবতার এক উজ্জল দৃষ্টান্ত।
এ বিষয়ে বানারীপাড়া থানায় কর্মরত পুলিশ ইন্সপেক্টর (তদন্ত) মো. জাফর আহমেদ বলেন, পুলিশ জনগনের সেবক। যখন খবর পেলাম তখনই ছুটে এসে তাদেরকে হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা সেবার ব্যবস্থা করি। আমরা (পুলিশ) যেটা করেছি এটা আমাদের ডিউটিরই একটা অংশ।
এদিকে প্রশংসায় ভাসছেন বানারীপাড়া থানা পুলিশ। এদিকে সচেতন মহল মনে করছেন ২৪ ঘন্টা ফেরিঘাটে একটি গাড়ি থাকা দরকার। কারন সঠিক সময় গাড়ি পেলে বেঁচে যেতে পারে একটি প্রান। প্রসঙ্গত মোঃ জাফর আহমেদ বরিশাল জেলার শ্রেষ্ঠ ওসি(তদন্ত) হিসেবে পরিগনিত হয়ে পুরস্কৃত হয়েছেন।
Md Jakir Hossen
Md


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Registration Form

[user_registration_form id=”154″]

পুরাতন সংবাদ দেখুন

বিভাগের খবর দেখুন