শিরোনাম
সোনার বাংলা আদর্শ ক্লাবের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন সম্পন্ন ,সভাপতি-রিপন সম্পাদক- টিপু ২১শে ফেব্রুয়ারি শুধু একটি দিন নয়, প্রেরণার উৎস অসামাজিক কার্যকলাপে জড়িত থাকায় নারীপুরুষসহ গ্রেপ্তার ৫ ইসলামের দৃষ্টিতে মাতৃভাষার গুরুত্ব ও তাৎপর্য জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখেননি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এক প্রধান শিক্ষক মহান ২১শে ফেব্রুয়ারি ভাষা শহীদ দিবস উপলক্ষে পঞ্চদশ সমাজ কল্যাণ সংস্হার আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত২০২৪ইং একজন প্রসূতি মাকে রক্ত দিয়ে জীবন বাঁচালেন শ্রীমঙ্গল থানার ওসি বিনয় ভূষন রায় তাহিরপুরে মাদানী ভক্তা ইস্যুতে পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে হামলা ও ভাংচুর, আটক ৫ হবিগন্জের মাধবপুরে ১৪ কেজি গাঁজা পাচারের সময় ০২ জন মাদক ব্যাবসায়ীকে গ্রেফতার করে মনতলা তদন্ত কেন্দ্রর পুলিশ শ্রম আদালতে মামলা চলাবস্থায় শেভরনের কর্মীদের টার্মিনেশন আদেশ হাইকোর্টে স্থগিত
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:৫১ পূর্বাহ্ন
Notice :
Wellcome to our website...

গজল শিল্পী ভূপিন্দর সিং-এর প্রয়াণ।

Daily Sylhet News24 / ২৭৪ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১৯ জুলাই, ২০২২

সিলেট বিনোদন ডেস্ক:
টানা দশ দিন হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে লড়াইয়ের পর মারা গেছেন প্রখ্যাত ভারতীয় সঙ্গীতশিল্পী ভূপিন্দর সিং। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিলো ৮২ বছর।

স্থানীয় সময় সোমবার (১৮ জুলাই) সন্ধ্যায় মুম্বাইয়ের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গায়কের স্ত্রী মিতালি সিং।

মিতালি জানান,করোনার পরবর্তী বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন তার স্বামী ও শরীরে নানা জটিলতা দেখা দিয়েছিলো। বেশ কয়েকদিন ধরেই অসুস্থ ছিলেন তিনি। পরে মুম্বাইয়ের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার সন্ধ্যায় তিনি মারা যান।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর প্রতিবেদনের মাধ্যমে জানা গেছে,শারীরিক নানা সমস্যায় ভুগছিলেন খ্যাতনামা এই গজলশিল্পী। অসুস্থতা এতটাই বেড়েছিলো যে,১০ দিন আগে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয় তাকে। চিকিৎসকদের অনুমান,কোলন ক্যানসারে আক্রান্ত হয়েছিলেন ভূপিন্দর সিং। তাঁর ওপর আবার করোনা টেস্টেরও রিপোর্ট পজিটিভ এসেছিলো।

প্রসঙ্গত,ভূপিন্দর সিংয়ের জন্ম ১৯৪০ সালে ভারতের পাঞ্জাবের অমৃতসরে। বাবার কাছে গানে তালিম নিতে শুরু করেছিলেন। এরপর অল ইন্ডিয়া রেডিওতে পেশাদার সংগীতশিল্পী হিসেবে যোগ দেন ভূপিন্দর সিং। পরে দূরদর্শনের সঙ্গেও যুক্ত হন। বাংলাদেশি গায়িকা মিতালি মুখার্জির সঙ্গে আশির দশকের শেষ দিকে পরিচয় হয় ভূপিন্দরের। পরে তাদের চার হাত এক হয়। এই সময় প্লে-ব্যাকের দুনিয়া থেকে বিরতি নেন ভূপিন্দর। স্ত্রীর সঙ্গে মিলে মিউজিক অ্যালবাম প্রোডিউস করার দিকে ঝোঁকেন।

পুরনো গজলে নতুন রূপ দিয়েছিলেন ভূপিন্দর সিং। আর তা সম্ভব হয়েছিলো তার গিটারপ্রীতির কারণেই। ভূপিন্দর চলে গেছেন না ফেরার দেশে, রয়ে গেছে তার সৃষ্টি। তার জনপ্রিয় গানের মধ্যে রয়েছে ‘মেরা রং দে বসন্তি চোলা’, ‘আহিস্তা আহিস্তা’, ‘পেয়ার হামে কিস মোড় পে লে আয়া’, ‘সাত্তে পে সাত্তা’, ‘এক আকেলা ইস শহর মে’ ইত্যাদি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Registration Form

[user_registration_form id=”154″]

পুরাতন সংবাদ দেখুন

বিভাগের খবর দেখুন