আজ ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সময় : রাত ৩:১৬

বার : বৃহস্পতিবার

ঋতু : শরৎকাল

সন্ত্রাসি হারামিরা এমনি হয়ে থাকে পাষন্ড।

8

ফাও খেতে নিষেধ করায় দুটি ক্ষেতের কয়েক লক্ষাধিক টাকার বাঙ্গি কুপিয়ে কেটে ধ্বংস করে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনাটি ঘটেছে রাজবাড়ীর কালুখালী উপজেলার মৃগী উপজেলার পাঁচুরিয়া গ্রামের মাঠে। যদিও একজন জমির মালিক ওই ঘটনায় ১৭ জনকে আসামি করে কালুখালী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
জানা গেছে, ওই গ্রামের আব্দুল খালেক মন্ডলের ছেলে বাবন মন্ডল এবং শহর আলীর ছেলে সায়েদ মন্ডল বাড়ির অদূরে থাকা মাঠে প্রায় ৩ পাখি জমিতে বাঙ্গি আবাদ করেন।
বাবন মন্ডল জানান, প্রতিবছরের মতো এবারও জামি বড়গা নিয়ে তিনি বাঙ্গির আবাদ করেন। পার্শ্ববর্তী চরকুলটিয়া গ্রামের একদল দুর্বৃত্ত মাঝে মধ্যেই তার ক্ষেতে এসে জোরপূর্বক বিনামূল্যে বাঙ্গি খেয়ে ও নিয়ে যায়। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে ওই দুর্বৃত্তরা তার ক্ষেতে আসে। তারা ক্ষেতে পাকা বাঙ্গি না পেয়ে মোবাইলে ফোন দেয় এবং পাকা দুইটা বাঙ্গি ও লবণ নিয়ে ক্ষেতে আসতে বলে। তিনি ভয়ে তার ছোট ভাই তপন মন্ডলকে সাথে নিয়ে দুইটি বাঙ্গি ও লবণ নিয়ে আসেন। দুর্বৃত্তরা বাঙ্গি খায়। সে সময় তিনি তাদের জোরপূর্বক বাঙ্গি নিয়ে যেতে নিষেধ করেন। এতে তারা ক্ষুব্দ হয় এবং তার ও তার ভাইকে বেধরক মারপিট করে। এর কিছু সময় পর দুর্বৃত্তরা ক্ষেতে আসে এবং তার ও পার্শ্ববর্তী সায়েদ মন্ডলের ক্ষেতের কয়েক লক্ষাধিক টাকা মূল্যের বাঙ্গিগুলো কেটে ধ্বংস করে রেখে চলে যায়। পরবর্তীতে তারা ক্ষেতে এসে এই ঘটনা দেখতে পান।

মৃগী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের আইসি পুলিশ পরিদর্শক কালাম খান জানান, শুক্রবার সকালে তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। সেই সাথে দুর্বৃত্তদের গ্রেপ্তার করতে অভিযানও চালিয়েছেন। তবে তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় চাষি বাবণ মন্ডল বাদী হয়ে কালুখালী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category