আজ ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সময় : রাত ৪:২৫

বার : বৃহস্পতিবার

ঋতু : শরৎকাল

দশঘর ইউপি নির্বাচনে তৃনমুলের পছন্দের প্রার্থী হাজী মোঃ কিনু মিয়া

 

রাজা মিয়া বিশেষ প্রতিনিধিঃ

আসন্ন ইউপি নির্বাচনে দশঘর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে তৃণমূলের পছন্দের চেয়ারম্যান পদ প্রার্থী বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের কৃতি সন্তান হাজী মোঃ কিনু মিয়া।

জানা যায় তিনি দীর্ঘদিন ধরে বিশ্বনাথ উপজেলার ৮ নং দশঘর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় দারিদ্র্য ও অসহায় মানুষের পাশে সর্বক্ষন নিজেকে জড়িয়ে রেখেছেন। পাশাপাশি তিনি একজন রাজনীতিবিদ তবে জননেত্রী শেখ হাসিনা ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের একজন কর্মী ও। তিনি শুধু একজন সুপরিচিত রাজনৈতিক ব্যক্তি নয় তৃণমূল পর্যায়ে সাধারণ মানুষের জন্য আজীবন নিরলস ভাবে কাজ করে যাওয়া একজন সমাজ সেবী ও।

তিনি যখন প্রবাসে ছিলেন তখনও দশঘর ইউনিয়নবাসীর কল্যাণে সব সময় কাজ করেছেন। এর ধারাবাহিকতায় আগামী ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে একজন গ্রহণ যোগ্য প্রার্থী হিসেবে তৃনমুল পর্যায়ের একজন হচ্ছেন প্রবীণ সালিশ ব্যক্তিত্ব ও শিক্ষানুরাগী সমাজসেবক হাজী মোঃ কিনু মিয়া।

বর্তমান করোনা কালীল সময়ে তিনি নিজে এবং তার পরিবারের সদস্যরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানবতার ফেরিওয়ালা সেজে বাড়ি বাড়ি গিয়ে অসহায় মানুষের মধ্যে বিভিন্ন উপায়ে খাদ্য সামগ্রী তুলে দেন। এছাড়া আর্থিক ক্ষতিগস্ত মানুষের পাশে দীর্ঘদিন ধরে নিজেকে বিলীন করে আসছেন।

নিজ এলাকায় গরীব অসহায় বিধবা প্রতিবন্ধি মানুষের মধ্যে হাসি ফোটাতে আর্থিক সহযোগিতার হাত প্রশস্ত করে দিয়েছেন তিনি।

এলাকায় আর্ত সামাজিক উন্নয়নে সব সময় নিজেকে জড়িয়ে রাখতে চেষ্টা করেন।

এলাকার মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে জনপ্রতিনিধি না হয়েও জনসেবক সেজে নিজেকে বিলীন করতে চান তিনি।

এ ছাড়া রাস্তা ঘাট ব্রিজ কালভার্ট,মসজিদ স্কুল সহ সামাজিক উন্নয়নের বিভিন্ন ক্ষেএে তার কর্ম দক্ষতার অসামান্য অবদান রয়েছে।

এলাকায় স্হানীয় লোকজনদের মধ্যে যে কোনো ঘটনার বিরুদ মিমাংসা ও শালীস প্রক্রিয়ার মাধ্যমে এলাকার মানুষের মধ্যে শান্তি সৌহার্দ্য তৈরি করতে তার কোনো বিকল্প নেই।

তার এই দুঃসাহসিক কর্ম দক্ষতা ভূয়সী প্রশংসা করেন এলাকার জনসাধারণ। তৃনমুল আওয়ামী লীগ ও সাধারণ মানুষের দাবি এবারের নির্বাচনে যেন সৎ যোগ্য ও নিষ্ঠাবান প্রার্থী হিসেবে হাজী কিনু মিয়াকে দলীয় প্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন দেয়া হয়।

এ বিষয়ে অনেকের সাথে কথা বলে জানা যায় তাদের দাবি দলীয় প্রতীকে নির্বাচন হলে তৃনমূল আওয়ামী লীগের পছন্দের প্রার্থী যিনি দীর্ঘদিন তৃনমূল আওয়ামী লীগের সুখ দুঃখে পাশে থেকে নিরলসভাবে কাজ করেছেন একজন কর্মী হিসেবে নিজেকে সবসময় পরিচয় দিয়ে মানুষের সেবায় জড়িয়ে রয়েছেন সেই ব্যক্তিত্ব হাজী মোহাম্মদ কিনু মিয়াকে যাতে দলীয়ভাবে মূল্যায়ন করা হয় এটাই তাদের প্রত্যাশা।।
এ বিষয়ে তার অনুভূতি জানতে চাইলে তিনি সিলেট ২৪ ডটকমকে বলেন আমি জনসেবাকে ইবাদতের অংশ মনে করে জনপ্রতিনিধি না হয়ে ও মানুষের সেবায় নিজেকে জড়িয়ে রেখেছি।

এ জন্য সকলের সার্বিক সহযোগিতা ও সমর্থন কামনা করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category