আজ ৭ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৩শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সময় : রাত ২:৫৪

বার : শুক্রবার

ঋতু : হেমন্তকাল

ঝুঁকি বাড়ছে ধর্মপাশায়,করোনার পরীক্ষার ফলাফল পেতে দেরি ।

লিপু মজুমদার ধর্মপাশা প্রতিনিধি সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলায় করোনার নমুনা দেওয়ার এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও মানুষজন করোনার পরীক্ষার ফলাফল জানতে পারছেন না। যথাসময়ে কোভিড ১৯পরীক্ষার ফলাফল না পাওয়ায় এ নিয়ে ভুক্তভোগী মানুষজনদের মধ্যে চরম ক্ষোভ ও হতাশা দেখা দিয়েছে। পাশপাশি করোনায় সংক্রমণের ঝুঁকিও দিন দিন বাড়ছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এ উপজেলায় গত ৪ এপ্রিল থেকে করোনার নমুনা সংগ্রহের কাজ শুরু হয়। প্রথম করোনারোগী শনাক্ত হয় ২৮এপ্রিল। এ উপজেলায় গত ২০জুন ১৮জনের নমুনা সংগ্রহ করে তা পরীক্ষা করার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

সেখান থেকে গত২৮জুন রাতে ইমেইলের মাধ্যমে ধরমপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ঝন্টু সরকারকে জানানো হয়েছে যে, এই ১৮জনের মধ্যে সবার ফলাফল নেগেটিভ এসেছে। এ ছাড়া গত ২৪জুন ৫জনের নমুনা সংগ্রহ করে তা ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হলেও সেখান থেকে এখনো এগুলোর ফলাফল আসেনি।ফলাফল না পেলেও আজ মঙ্গলবার আরও১৮জনের নমুনা সংগ্রহ করে তা ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে নাম প্রকাশ না করার শর্তে করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দিয়েছেন এমন এক জনপ্রতিনিধি বলেন, করোনার নমুনা দেওয়ার পর ফলাফল পেতে এক সপ্তাহ বা তারও বেশি সময় পার হয়ে যাচ্ছে। জনগণের স্বাস্থ্যসেবার নামে এটি হটকারিতা ছাড়া আর কিছুই নয়। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ঝন্টু সরকার আজ মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন,এ উপজেলায় গতকাল সোমবার পর্যন্ত মঙ্গলবার পর্যন্ত ৩৮০জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এদের মধ্যে ৩৫৭জনের ফলাফল পাওয়া গেছে।

এই ৩৫৭জনের মধ্যে ১৯জন কোভিড ১৯ সংক্রমিত হয়েছেন। এদের মধ্যে ১৮জনই করোনাকে জয় করে সুস্থ হয়েছেন। বাকি একজন হোম আইসোলেশনে রয়েছেন। করোনা পরীক্ষার ফলাফল পেতে এক সপ্তাহ বা তারও বেশি সময় পার হওয়ায় করোনায় সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ছে। বিষয়টি উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) মুনতাসির হাসান বলেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সর্বরকম প্রচেষ্ঠা অব্যাহত রয়েছে। করোনার ফলাফল পেতে দেরি হলে করোনার সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়বে এটাই স্বাভাবিক। বিষয়টি আমি খোঁজ নিয়ে দেখব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category