আজ ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩০শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সময় : সকাল ৮:১৫

বার : সোমবার

ঋতু : হেমন্তকাল

তাড়াইলে ১০ লক্ষ টাকার মাছ নিধন

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি :

তাড়াইল উপজেলার ধলা ইউনিয়নের সেকান্দরনগর চরপাড়া এলাকায় মাছের ১টি বের-এ (ফিসারি) প্রায় দশ লক্ষ টাকার মাছ মরে পানিতে ভেসে উঠেছে।
মরা মাছ দেখতে ভোর থেকে শত শত লোক ভির করছে ফিসারির পাশে।

জানাগেছে, সেকান্দরনগর চরপাড়া গ্রামের মাছ চাষি আলী আকবর (৫৫) এলাকার লোকজনদের কাছ থেকে গত জৈষ্ঠ্যমাসে জমি ও ডোবা পত্তন নেয় ১ বছরের জন্য। তারপর থেকে তিনি মোট ১০ লক্ষ টাকা খরচ করে মাছ চাষ করে আশায় বুক বেঁধে অপেক্ষায় দিন গুনতে থাকে।

আজ ১২ নভেম্বর/২০২০ বৃহস্পতিবার ভোর ৬টায় হয় সর্বনাশ। পাড়ার লোকজনের মাধ্যমে আলী আকবর খবর পায় তার ফিসারির সব মাছ মরে পানিতে ভেসে উঠছে। খবর পেয়ে আলী আকবর ও তার প্রতিবেশিরা ছুটে যায় ফিরারির পাড়ে এবং মর্মান্তিক ঘটনায় আলী আকবর মানসিকভাবে ভেঙে পড়ে। আলী আকবর ও তার স্বজনরা জানায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে একটি গোষ্ঠী বিষ প্রয়োগ করে ঘটনাটি ঘটিয়েছে।

বিষ প্রয়োগে ১০ লক্ষ টাকার মাছ নিধনের খবর পেয়ে তাড়াইল উপজেলা মৎস অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) আবু সাদাত মো. ছায়েম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তিনি জানান, মাছ দেখে মনে হচ্ছে বিষ প্রয়োগে মারা গেছে কিন্তু বাস্তব কথা হলো পরীক্ষা ছাড়া আমরা কিছু বলতে পারছি না। পানির নমুনা সংগ্রহ করেছি। বিস্তারিত নমুনা পরীক্ষার পর জানা যাবে।

তাড়াইল থানার পুলিশ ফিসারি পরিদর্শন করেছে। মৎস চাষি আলী আকবর জানায় আমার এলাকার একটি প্রভাবশালী মহল কিছু দিন ধরে হুমকি দিয়ে আসছিল। তারা আমার উপর বারবার আক্রমন করছে। গত কয়েক দিন পূর্বে আমার উপর আক্রমণ করে এবং লোকজনের সামনে প্রকাশ্যে বলে “কিরম বেডা ফিশারির পাড়ে যাইস”।
তারাই আমার এই সর্বনাশ করেছে।
এলাকাবাসী ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন।

বার্তাপ্রেরক-
আল-মামুন খান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category