শিরোনাম
পদ্মাসেতুর উদ্বোধনস্থলে হবিগঞ্জের তিন জনপ্রতিনিধি সাতক্ষীরা তালায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাত গ্রেফতার বালাগঞ্জে খেলাফত মজলিসের ত্রাণ বিতরণ। ঘাটাইল উপজেলায় আওয়ামীলীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী ওসমানীনগর উপজেলায় বন্যা পরিস্থিতির অবনতি,নিশ্চুপ জনপ্রতিনিধিরা শেরপুর প্রেসক্লাবে(মৌলভীবাজার)এর বন্যার্তদের মধ্যে রান্না করা খাবার বিতরন সিলেট কোম্পানিগঞ্জে বন্যা দুর্গতদের মধ্যে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করছেন সন্ধানী জালালাবাদ রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজ ইউনিট এর নেতৃবৃন্দ বন্যায় দুর্গতদের পাশে ‘তালামীযে ইসলামিয়া’। বানিয়াচঙ্গে বানভাসিদের মাঝে ‘বাসদ’ ও ‘উদীচী’র ত্রাণ বিতরণ। আওয়ামী লীগ সব সময় জনগণের পাশে আছে, এটি অব্যাহত থাকবে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
রবিবার, ২৬ জুন ২০২২, ০২:৫৬ পূর্বাহ্ন
Notice :
Wellcome to our website...

তাড়াইলে লাইসেন্স ছাড়াই বিক্রি হচ্ছে এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাস

Coder Boss / ১৬৮ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : বুধবার, ৭ এপ্রিল, ২০২১

আল-মামুন খান, তাড়াইল (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি:
কিশোরগঞ্জের তাড়াইলে বিস্ফোরক লাইসেন্স ছাড়াই যত্রতত্র বিক্রি হচ্ছে এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাস। যে কোনো সময় দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।
সরেজমিনে দেখা যায়, তাড়াইল উপজেলার বিভিন্ন মুদি দোকান, হার্ডওয়ারের দোকান, রড-সিমেন্টের দোকান, কিংবা চায়ের স্টলের পাশে অবৈধভাবে বিক্রি হচ্ছে এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাস এবং পেট্রোল। বিক্রেতার নেই কোনো প্রশিক্ষণ, নেই বৈধ কাগজপত্র। দিন দিন গ্যাসের চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ায় কোনো নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে, সরকারী নির্ধারিত মুল্য থেকে দ্বিগুন মুল্যে বিক্রি করা হচ্ছে সবখানে। প্রকাশ্যে বিক্রি করা হচ্ছে এ সব সিলিন্ডার গ্যাস ও পেট্রোল। উপজেলায় ছোট-বড় প্রায় ২০-২৫ টি বাজার রয়েছে। সবচেয়ে বড় তাড়াইল উপজেলা সদর বাজার, তালজাঙ্গা বাজার এবং পুরুড়া বাজার। এসব বাজারের ব্যস্ততম সড়কের উপর গ্যাস সিলিন্ডার গুলো সারিবদ্ধ করে রেখে তা বিক্রি করছে অনেক ব্যবসায়ী।
নীতিমালা বলছে, যেখানে ঘন বসতিপূর্ণ এলাকা সেখান থেকে ২০০ মিটার দূরে এমন পণ্য বেচা-কেনা করতে পারবে। কিন্তু নিয়মনীতিকে বৃদ্ধাঙ্গুলী দেখিয়ে যেখানে সেখানে বিক্রি করছে এসব অনুমোদনহী এলপিজি গ্যাস।

তাড়াইল ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের লোকজন বলেছেন, এলপিজি গ্যাস ও পেট্রোল বিক্রি করতে হলে বিস্ফোরক লাইসেন্স থাকতে হবে। আমাদের জানা মতে তাড়াইলে এলপিজি গ্যাস ও পেট্রোল বিক্রির অনুমোদন সনদপ্রাপ্ত কোনো দোকান নেই। যারা বিক্রি করছে তারা অবৈধভাবে দোকান চালাচ্ছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তারেক মাহমুদ জানান, বিস্ফোরক লাইসেন্স কিংবা ফায়ার সার্ভিস কর্তৃক সনদপত্র ছাড়া যারা অবৈধভাবে এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডার ব্যবসা করছে তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Registration Form

[user_registration_form id=”154″]

পুরাতন সংবাদ দেখুন

বিভাগের খবর দেখুন