শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২, ০৯:১৮ পূর্বাহ্ন
Notice :
Wellcome to our website...

বানারীপাড়ার আলতা ফায়জুল হক ব্রীজ যেন মরণ ফাঁদ।

Coder Boss / ৩১৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : রবিবার, ১২ জুলাই, ২০২০

 

জাকির হোসেন, বরিশাল জেলা প্রতিনিধিঃ

বরিশালের বানারীপাড়ায় আলতা ফায়জুল হক ব্রিজ মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে।গত এক বছর পূর্বে ওই ব্রিজের মাঝের অংশ ভেঙ্গে বড় আকারের গর্তের সৃষ্টি হয়। এছাড়া বালুর বলগেটের ধাক্কায় ব্রিজের নিচের লোহার ভিম ও এঙ্গেল ভেঙ্গে ব্রিজ দেবে ও কিছুটা হেলে পড়ে মৃত্যু ফাঁদে পরিণত হয়। বানারীপাড়া সদর ইউনিয়নের আলতা গ্রামে অবস্থিত এ ব্রীজটির বিষয়ে জনপ্রতিনিধি ইউপি চেয়ারম্যান জলিল ঘরামীর উদ্যোগ ও কিছুটা হলেও অগ্রগতি হতো বলে এলাকাবাসী ধারনা করেন। কিন্তু তাদের দায়িত্ব নেই বলেই হয়তো তারা এদিকে কোন দৃষ্টিপাত করেনি। বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার রায়েরহাট ও পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি উপজেলার কুড়িয়ানা সড়কের আলতা গ্রামে ফায়জুল হক ব্রিজটি ১৯৯৮-৯৯ অর্থ বছরে নির্মাণ করা হয়। শের-ই বাংলার একমাত্র তনয় তৎকালীণ আওয়ামী লীগ সরকারের পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী এবং বানারীপাড়া-স্বরূপকাঠি আসনের সংসদ সদস্য একে ফায়জুল হক দু’উপজেলার মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরী করার জন্য ওই ব্রিজটি নির্মাণ করায় স্থানীয়রা তার নামে এর নামকরণ করেন। এদিকে গত এক বছর পূর্ব থেকে ব্রিজটি মরণ পাঁদে পরিনত হলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের এ নিয়ে কোন মাথা ব্যথা নেই। স্থানীয়রা ব্রিজের ভাঙ্গা অংশে স্টিলের পাত দিয়ে জোড়াতালি দেওয়ার চেষ্টা করেন। সাম্প্রতিক সময়ে ব্রিজের মাঝে আরও একাধিক গর্তের সৃষ্টি হওয়ার পাশাপাশি রেলিং খসে খসে পড়ছে। দিন-রাত ক্ষতিগ্রস্থ ওই ব্রিজের ওপর দিয়ে মৃত্যু ঝুঁকি নিয়ে বিভিন্ন যান বাহন ও মানুষ চলাচল করছে। যেকোন সময় ব্রিজটি খালে ভেঙ্গে পড়ে মর্মান্তিক ট্র্যাজেডি ঘটতে পারে। ফলে এলাকাবাসী দূর্ঘটনা এড়াতে অনতিবিলম্ভে ব্রিজটি ভেঙ্গে নতুন ব্রিজ নির্মাণের দাবি জানিয়েছেন।এ প্রসঙ্গে বানারীপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গোলাম ফারুক বলেন ঝুঁকিপূর্ণ ওই ব্রিজটি ভেঙ্গে সেখানে নতুন ব্রিজ নির্মাণের জন্য ইতোমধ্যে এলজিইডি মন্ত্রনালয়ে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।

জাকির হোসেন,
( বরিশাল প্রতিনিধি॥
তারিখ.১২-৭-২০২০


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Registration Form

[user_registration_form id=”154″]

পুরাতন সংবাদ দেখুন

বিভাগের খবর দেখুন